গাজীপুরে বিশ্ব ডিম দিবস পালিত

0
75
728×90 Banner

মুহাম্মদ আতিকুর রহমান, গাজীপুর প্রতিনিধি : “ডিমে পুষ্টি ডিমে শক্তি, ডিমে আছে রোগ মুক্তি” এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে গাজীপুরে বিশ্ব ডিম দিবস পালিত হয়েছে।
শুক্রবার (১৩ অক্টোবর) সকালে গাজীপুর জেলা প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের আয়োজনে এ উপলক্ষে শোভাযাত্রা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।
জেলা প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের কার্যালয় চত্বর থেকে এ উপলক্ষে একটি শোভাযাত্রা বের হয়ে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে একই স্থানে এসে শেষ হয়।
পরে জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তার কক্ষে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন- ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ হেলাল আহম্মদ।
সভায় বক্তব্য রাখেন, গাজীপুর জেলা ভেটেরিনারি সার্জন ডাঃ মোহাম্মদ মোখলেছুর রহমান, কালীগঞ্জ উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ মোহাম্মদ ইউসুফ হাবিব, কাপাসিয়া উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ রাশেদুজ্জামান, বাংলাদেশ পোল্ট্রি ইন্ডাস্ট্রিজ এসোসিয়েশনের কেন্দ্রীয় প্রচার সম্পাদক মোঃ তোফাজ্জল হোসেন, গাজীপুর জেলা পোল্ট্রি এসোসিয়েশনের আহবায়ক বাসির আহমেদ বসির, ঔষধ কোম্পানির রিপ্রেজেন্টেটিভ আশরাফ হোসেন, খামারী সাইফুল ইসলাম, খামারী এম এ মতিন প্রমুখ।
মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন ও সঞ্চালনা করেন গাজীপুর সদর উপজেলা ভেটেরিনারি সার্জন ডাঃ মোঃ মিজানুর রহমান। অনুষ্ঠান শুরুতে পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত করেন আজহার হোসেন, গীতা পাঠ করেন অতিরিক্ত জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা লিপি রানী বসাক।
এসময় বিভিন্ন শ্রেণীপেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।
ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ হেলাল আহম্মদ বলেন, “ডিমে পুষ্টি ডিমে শক্তি, ডিমে আছে রোগ মুক্তি” প্রতিপাদ্য নিয়ে আজ পালিত হচ্ছে বিশ্ব ডিম দিবস। ডিম পুষ্টিগুণে ভরা এক অসাধারণ খাবার। সারা বিশ্বে পুষ্টির ঘাটতি মোকাবিলায় ডিমকে জনপ্রিয় করার লক্ষ্যে এ দিনটি পালিত হয়।
ডিম সুস্বাদু আর সহজলভ্য এক খাবার। হাতের তালুর সমান এই ছোট এই খাবারে রয়েছে আমাদের শরীরের জন্য অতি প্রয়োজনীয় ১৩টি পুষ্টিগুণ। ডিম সাশ্রয়ী মূল্যে প্রাণিজ প্রোটিনের মধ্যে অন্যতম। ডিমকে বলা হয় ‘গরিবের প্রোটিন’। আবার টেকসই প্রাণিজ প্রোটিনের মধ্যে এর স্থান সবার ওপরে।
তিনি ডিমের পুষ্টিগুণ নিয়ে বলেন, ডিমের বহুমুখী গুণের জন্য এটি বিশ্বব্যাপী সমাদৃত। ডিমে যেসব পুষ্টিগুণ থাকে, তা সাধারণত অন্যান্য খাবারে খুব কমই থাকে। তাই সুষম ডায়েটের জন্য ডিম একটি অসাধারণ খাবার। এটি গর্ভবতী মা, শিশু, কিশোর এবং বয়স্কদের জন্যে অতি প্রয়োজনীয় পুষ্টির চাহিদা মেটাতে সক্ষম।
ডিমে ৯ ধরনের অ্যামিনো অ্যাসিড থাকে, যা শরীরে প্রোটিনের সমস্ত চাহিদা মেটাতে সক্ষম। ডিমের প্রোটিন পেশি তৈরি করতে, ক্ষুধা নিবারণ করতে, রোগ প্রতিরোধক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে।
সাধারণত আয়রন এবং ভিটামিন এ, বি৬, বি১২, ডির ঘাটতি দেখা যায় বিশ্বজুড়ে। ডিমের মধ্যে এসব পুষ্টিগুণ উপস্থিত থাকে। ডিমের এ পুষ্টিগুণ আমাদের প্রাকৃতিকভাবে রোগ প্রতিরোধক্ষমতা বাড়ায়। শারীরিক বৃদ্ধি ঘটায়। শিশুর মস্তিষ্কের বিকাশে সহায়তা করে।
ডিম সেলেনিয়ামের সমৃদ্ধ উৎস। এতে রয়েছে দস্তা, লোহা এবং তামার মতো নানা প্রয়োজনীয় খনিজ উপাদান। এগুলো বিশেষত কোলিনের উত্স হিসেবে পরিচিত, যা মস্তিষ্কের বিকাশে সহায়তা করে ও স্মৃতিশক্তি তীক্ষ্ণ করে।
তিনি আরো বলেন, বর্তমানে ১টি বেনসন সিগারেটের মূল্য ১৮ টাকা, হাফ লিটার ১ বোতল পানি ২০ টাকা আর ১ টি ডিমের মূল্য ১২/১৩ টাকা। সিগারেট আমাদের জন্য ক্ষতিকর। পানি দরকারী হলেও ডিমের যে পুষ্টিমান তুলনা করলে ডিম অনেক সহজলভ্য পুষ্টি যা মানুষের স্বাস্থ্যের জন্য অত্যাবশ্যকীয়। তাই প্রতিদিন ডিম খাওয়ার অভ্যাস বাড়াতে হবে।
তিনি, এন্টিবায়োটিক মুক্ত নিরাপদ ডিম মাংস উৎপাদনের লক্ষ্যে খামারী ও পোল্ট্রি এসোসিয়েশন নেতৃবৃন্দদের পদক্ষেপ নিতে অনুরোধ করেন।
ডিম দিবস উপলক্ষে রবিবার (১৫ অক্টোবর) গাজীপুর সদরের ২/৩টি এতিমখানা ও মাদরাসায় বিনামূল্যে এতিমদের মাঝে ১ থেকে দেড় হাজার ডিম বিতরণ করা হবে।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here