টঙ্গীতে ট্রাক প্রতীকের অফিসে হামলা, আহত তিন

0
96
728×90 Banner

ডেইলি গাজীপুর প্রতিবেদক: গাজীপুর-২ আসনের টঙ্গীতে স্বতন্ত্র প্রার্থী ট্রাক প্রতীকের অফিসে কেন্দ্র কমিটি গঠন করার সময় নৌকা প্রতীকের নেতাকর্মীরা হামলা চালিয়ে ৩ জনকে আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৪টায় স্থানীয় স্টেশনরোড মাছিমপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।স্থানীয় সূত্র জানায়, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের ৫৫ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক ইকবাল হোসেনের বাসার নিচতলার অফিস কক্ষে ট্রাক প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী কাজী আলিম উদ্দিনের নির্বাচনী কমিটি গঠন নিয়ে আলাপ-আলোচনা চলছিল। এ সময় টঙ্গী পশ্চিম থানা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক দ্বীন মোহাম্মদ নীরবসহ ১০-১২ ছাত্রলীগের কর্মী অতর্কিতে হামলা চালায়।

এ সময় ৫৫ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক কাইয়ুম মাস্টার, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা রিপন হোসেন ও রফিককে মারধর করে। আহতদের মধ্যে রিপন স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।
ঘটনার পর মারামারির একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে এলাকায় উত্তেজনা দেখা দেয়।
আহত রিপন জানান, আমরা কয়েকজন ইকবাল ভাইয়ের অফিসে ট্রাক প্রতীকের কমিটি নিয়ে কথা বলার সময় নীরবের নেতৃত্বে প্রথমে রানা আমার গলা চেপে ধরলে তাকে ছাড়িয়ে দেওয়া হয়। পরে অজ্ঞাত ২ জন অফিসে প্রবেশ করে কাইয়ুম মাস্টারের মোবাইল ফেলে দিয়ে গালিগালাজ শুরু করেন। এ সময় তারা আমাদের দুজনকে এলোপাতাড়ি মারধর করে হুমকি দিয়ে চলে যান।
ট্রাক প্রতীকের কর্মী ও ৫৫ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক ইকবাল হেসেন বলেন, আমরা ট্রাক প্রতীকের কমিটি নিয়ে কথা বলছিলাম। এ সময় নীরব কয়েকজনকে সঙ্গে নিয়ে হামলা করে মারধর করে চলে যায়। হামলায় তিনজন আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় সিনিয়র নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
টঙ্গী পশ্চিম থানা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক দ্বীন মোহাম্মদ নীরব বলেন, অভিযোগ মিথ্যা। রিপন একজন ছিনতাইকারী। মোবাইল ছিনতাইয়ের বিষয় নিয়ে তাকে মারধর করেছে। কাইয়ুম মাস্টার আমাদের নৌকার লোক। এর বাহিরে কী হয়েছে আমি জানি না।
টঙ্গী পূর্ব থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মুস্তাফিজুর রহমান বলেন, এ ধরনের কোনো ঘটনা নিয়ে কেউ আমার কাছে আসেননি।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here