ঢাকা- ১৮ আসনে ট্রাক প্রতীক সমর্থকদের প্রচারণায় জমজমাট নির্বাচনী মাঠ

0
40
728×90 Banner

মোল্লা তানিয়া ইসলাম তমাঃ আগামী ৭ই জানুয়ারি ২০২৪ইং তারিখে অনুষ্ঠিত হবে জাতীয় সংসদ নির্বাচন । তাই সর্বত্রই আলোচনার একমাত্র বিষয় নির্বাচন । নির্বাচন যতই ঘনিয়ে আসছে ততই বাড়ছে প্রার্থীদের প্রচারণা । এরই ধারাবাহিকতায় ঢাকা ১৮ আসনের সর্বত্রই ট্রাক প্রতীকের প্রার্থী, আদর্শ দক্ষিণ খান ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান, বৃহত্তর উত্তরা থানা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি, ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সাবেক বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক এবং ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক বীর- মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেনের সমর্থকদের প্রচারণায় জমজমাট হয়ে উঠেছে ঢাকা ১৮ আসনের নির্বাচনী মাঠ । এই আসনে প্রতিদিনই বীর- মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেনের সমর্থকরা নিজ নিজ উদ্যোগে, এলাকার বিভিন্ন পাড়া-মহল্লায় ট্রাক প্রতীকের লিফলেট বিতরন থেকে শুরু করে নির্বাচনী সর্ব প্রকার প্রচার প্রচারণা চালিয়ে আলোড়ন সৃষ্টি করেছেন । তার সমর্থকেরা বলেন, ঢাকা ১৮ আসন বাসির নিবেদিত প্রান বীর মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেন । তিনি পরিচ্ছন্ন একজন রাজনীতিবিদ হিসেবে ঢাকা ১৮ আসন তথা দেশ জুড়ে রয়েছে তার ব্যাপক সুনাম । ব্যক্তিগত জীবনে ন্যায় নিষ্ঠাবান ও অত্যন্ত সদালাপী ব্যক্তি জনাব বীর- মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেন । তিনি বিভিন্ন সামাজিক উন্নয়ন ম‚লক কাজে সরব ভুমিকা পালন করেন । ইতিমধ্যে উত্তর খান থানার ফায়দাবাদ এলাকার এক অটো রিকশা চালক নায়েব আলী তার নিজ উদ্যোগে রিকশা যাত্রীদের কাছে বীর মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেনের পক্ষে ট্রাক প্রতীকের জন্য দোয়া ও ভোট চেয়ে ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি করেছেন । রিকশা চালক নায়েব আলীর এই উদ্যোগের কারন জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি প্রায় ২০ বছর ধরে দক্ষিন খান চেয়ারম্যান বাড়ির কাছেই থাকি এবং বীর মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেন সাহেবকে চিনি । তার মত এমন নীতিবান ও ন্যায় বিচারক আমি কোথাও দেখেনি । তাই আমি আমার সাধ্য মত চেষ্টা করছি একজন নীতিবান ও ন্যায় বিচারকের জয়ের জন্য । অপর দিকে তুরাগের ধউর এলাকার দিন মুজুর আজিজুল হককে ট্রাক প্রতীকের লিফলেট বিতরন করতে দেখা যায় । পাশাপাশি ভোটারদের কাছে ট্রাক প্রতীকের জন্য ভোট চান তিনি । তার এই উদ্যোগের কারন জানতে চাইলে তিনি বলেন, মুক্তিযোদ্ধারা যুদ্ধ করে এই দেশটা স্বাধীন করেছে তাই মুক্তিযোদ্ধাদের এই ঋণ বাঙালি জাতি কোন দিন শোধ করতে পারবে না । আর বীর- মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেন একজন বীর- মুক্তিযোদ্ধা । তাই আমি আমার নিজ উদ্যোগে তার জয়ের জন্য কাজ করে যাচ্ছি । হরিরামপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাবেক সিনিয়র সহ সভাপতি, এলাকার দানবীর খ্যাত আওয়ামীলীগ নেতা আলহাজ মোঃ কফিল উদ্দিন মেম্বর বলেন, আমি এই এলাকার আদি বাসিন্দা এবং বীর- মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেনও নিকটবর্তী দক্ষিনখান এলাকার আদি বাসিন্দা । আমি ছোট বেলা থেকেই তাকে দেখে আসছি ও এক সাথে রাজনীতি করেছি । তার মত এমন নীতিবান লোক বর্তমান জামানায় খুঁজে পাওয়া মুশকিল । এই এলাকায় বিভিন্ন শ্রেণি পেশার বহুলোক বসবাস করে । তিনি কাউকে কখনো অন্য দৃষ্টিতে দেখেন না, তার কাছে কে কোন ধর্মের কোন ভেদাভেদ নেই, সবাইকে তিনি আপন ভাবেন এবং আওয়ামীলীগ নেতা কর্মীদের সুখদুঃখের অংশীদার হয়ে সবসময় তাদের পাশে থাকেন । তার মত সৎ ও যোগ্য ব্যক্তির পাশে থাকতে পেরে আমি গর্বিত । তাই তার জয়ের জন্য সর্বাত্মক চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি । দক্ষিনখান বিদুর পাড়া এলাকায় সালমান তালুকদার নামে এক ব্যক্তিকে দেখা যায় বীর মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেনের ট্রাক প্রতীকের পক্ষে ভোট চেয়ে ভোটারদের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন । প্রচারণায় অংশ নেওয়া উত্তরার উজ্জল হোসেন, হালিম দেওয়ান, ১নং ওয়ার্ডের মোঃ রাজু সরকার, কাওলা এলাকার বাদশা খাঁন, আঃ কুদ্দুস বেপারী, আব্দুল্লাহপুর এলাকার আব্বাস, জাহাঙ্গীর, সুনীল শীল, ডিয়াবাড়ি এলাকার রুহুল আমিন, মিলন মিয়া, রানা ভোলা এলাকার আঃ রাজ্জাক হাওলাদার, ৫৩নং ওয়ার্ডের সজীব রায়হান, ফেরদৌস, কামারপাড়া এলাকার মোঃ হোচেন বেপারী, শরীফ, উচ্চারটেক এলাকার হাজ্বী হেলালউদ্দীন, গোলাম শিকদার, আহালিয়া এলাকার ফারুক, তারেক মিয়া, পান্নু, জমির উদ্দিনসহ একাধিক ট্রাক প্রতীকের সমর্থকরা বলেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেন একজন আদর্শ ও নীতিবান ব্যক্তি, বর্তমান প্রধান মন্ত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তি, আর আমরাও প্রধান মন্ত্রীর মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিকে বিশ্বাস করি । তাই আমরা একজন নীতিবান ও মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিতে বিশ্বাসী একজন বীর- মুক্তিযোদ্ধার পক্ষ্যে, সমাজে ন্যায় প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে বীর- মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেনের ট্রাক প্রতীকের জয়ের জন্য নেমেছি । আমরা ট্রাক প্রতীককে জয়ী করেই ঘরে ফিরবো ইনশাল্লাহ । নির্বাচনের বিষয়ে জানতে বীর- মুক্তিযোদ্ধা এস এম তোফাজ্জল হোসেনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আমি ছাত্র জীবন থেকেই রাজনীতির সাথে যুক্ত । এরই ধারাবাহিকতায় ২০১১ইং সালে বিপুল ভোটের ব্যবধানে আদর্শ দক্ষিনখান ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হই । চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়ে এলাকাবাসীর সেবা করেছি এবং করে যাচ্ছি । আমি ছাত্র জীবন থেকেই আওয়ামীলীগের রাজনীতি করার মাধ্যমে জনগণের সেবা করে আসছি । আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঢাকা ১৮ আসনের সংসদ সদস্য পদে মোট ১০জন প্রার্থী অংশ গ্রহন করেছেন । এদের মধ্যে ভোটাররা যদি আমাকে যোগ্য মনে করেন তাহলে তাদের মুল্যবান ভোট দিয়ে আমাকে নির্বাচিত করবেন । আর যদি ভোটাররা আমাকে অযোগ্য মনে করেন তাহলে তারা জেন আমাকে ভোট না দেন । আমি এম পি নির্বাচিত হলেও আমার এলাকাবাসির সেবা করবো এবং নির্বাচিত না হলেও আমার সাধ্যমতো এলাকাবাসীর সেবা করব । এমনকি আমি মৃত্যুর আগ পর্যন্ত আমার এলাকাবাসীর সেবা করে যাব ইনশাল্লাহ ।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here