বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম বাবুল কে স্বাধীনতা পদক দেওয়ার আহ্বান …অধ্যাপক ড. নিম চন্দ্র ভৌমিক

0
23
728×90 Banner

ডেইলি গাজীপুর ( সংবাদ বিজ্ঞপ্তি ) : বঙ্গবন্ধুর আহ্বানে ১৯৭১ সালে স্বাধীন বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠায় মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ স্বাধীন বাংলাদেশের উন্নয়ন দেশীয় পণ্য উৎপাদন ও কর্মসংস্থানের লক্ষ্যে যমুনা শিল্প গ্রুপ এর প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান বাংলাদেশের সাধারণ মানুষদের সংবাদ প্রকাশ ও প্রকাশনার জন্য দৈনিক যুগান্তর ও যমুনা টেলিভিশন প্রতিষ্ঠা নির্লোভ নিরহংকার মানবদরদী গরীব মানুষের বন্ধু, বঙ্গবন্ধু আদর্শের সৈনিক বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ নুরুল ইসলাম বাবুল এর ১ম মৃত্যুবার্ষিকীতে এক আলোচনা সভার আয়োজন করেছে বাংলাদেশ জাতীয় গণতান্ত্রিক লীগ ১৬ জুলাই ২০২১ বিকাল ৪.০০ ঘটিকায় বাংলাদেশ শিশুকল্যাণ পরিষদ কনফারেন্স হল, ঢাকা।
আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ জাতীয় গণতান্ত্রিক লীগের সভাপতি এম এ জলিল
আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সাবেক রাষ্ট্রদূত ও সহ সভাপতি, মুক্তিযোদ্ধা সংহতি পরিষদ অধ্যাপক ড. নিম চন্দ্র ভৌমিক।
আলোচনা সভায় প্রধান আলোচক ছিলেন বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদ সভাপতি, লায়ন গণি মিয়া বাবুল।
বিশেষ অতিথি ঃবঙ্গবন্ধু ছাত্র পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির উপদেষ্টা বীর মুক্তিযোদ্ধা মেজর মোঃ মফিজুল হক সরকার (অবঃ). কলামিস্ট ও সাহিত্যিক কবি নাহিদ রোখসানা. কাজী আরেফ ফাউন্ডেশন সভাপতি কাজী মাসুদ আহমেদ, ন্যাপ ভাসানী চেয়ারম্যান এম এ ভাসানী, ন্যাপ ভাসানীর সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী রেদওয়ান শিকদার, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মোঃ লোকমান হোসেন চৌধুরী, বরিশাল বিভাগ সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ স ম মোস্তফা কামাল, বরিশাল বিভাগ সমিতির সদস্য নকিব হক, বাংলাদেশ জাসদ নেতা হুমায়ুন কবির, নারীনেত্রী এলিজা রহমান, বাংলাদেশ জাতীয় গণতান্ত্রিক লীগের সহ সভাপতি ফাতেমা খাতুন, সাধারণ সম্পাদক সমীর রঞ্জন দাস ও দপ্তর সম্পাদক কামাল হোসেন প্রমুখ।
প্রধান অতিথির ভাষনে অধ্যাপক ড. নিম চন্দ্র ভৌমিক বলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ নুরুল ইসলাম ছিলেন একজন দেশপ্রেমিক খাটি বাঙালি। সেই কারণে তিনি বঙ্গবন্ধুর আহ্বানে মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছিলেন ১৯৭১ সনে এবং স্বাধীন বাংলাদেশে সাধারন লোকদের কর্মসংস্থানের লক্ষে যমুনা শিল্প গ্রুপ প্রতিষ্ঠা করেন। পরবর্তীতে তিনি বাঙালি জাতীয়তাবাদ মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও সম্পৃতির বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে দৈনিক যুগান্তর ও যমুনা টেলিভিশন প্রতিষ্ঠা করেন। তিনি যে সাধারন গরীব মানুষকে ভালবাসতেন তার প্রমাণ বক্তাদের মাঝে বক্তৃতায় এসেছে তিনি অনেক মুক্তিযোদ্ধাকে আর্থিক সহায়তা করেছেন এবং কর্মসংস্থান করেছেন। এই জন্য আমরা ও বাঙালি জাতি বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলামের কাছে চিরঋণী।
নিম চন্দ্র ভৌমিক আরো বলেন এই বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম বাবুল কে আগামী ২০২২ সালে স্বাধীনতা পদক দেওয়ার জন্য গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনার কাছে আবেদন জানাচ্ছি। যাতে বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম বাবুল স্বাধীনতা পদক পেতে পারেন।
প্রধান আলোচক হিসেবে লায়ন গনি মিয়া বাবুল বলেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম বাবুল ছিলেন একজন সাংবাদিক প্রিয়। সেই কারণে বাবুল ভাই দৈনিক যুগান্তর ও যমুনা টেলিভিশন প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। সাংবাদিকদের জন্য এবং মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠার লক্ষে। তিনি আরো বলেন, তার কাছে যে কোন পত্রিকার কথা বলে সাহায্য সহযোগিতা চাইলে তিনি তা করতেন। এই জন্য বীর মুক্তিযোদ্ধা বাবুল এর কাছে আমরা এবং সাংবাদিকরা চিরকৃতজ্ঞ।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

one × five =