মানবাধিকারের ঐতিহাসিক দলিল বিদায় হজের ভাষণ…… এড. ড. মোহাম্মদ শাহজাহান

0
14
728×90 Banner

ডেইলি গাজীপুর সংবাদ বিজ্ঞপ্তি : মানবাধিকারের সত্যিকারের ঐতিহাসিক দলিল হল মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সঃ) বিদায় হজের ভাষণই ছিল মানবাধিকারের ধারণার পত্র। বাংলাদেশ সিভিল রাইটস্ সোসাইটি-বিসিআরএস এর উদ্যোগে ৮ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার বিকাল ৩টায় বাংলাদেশ শিশুকল্যাণ পরিষদ মিলনায়তনে “মানবাধিকার পরিস্থিতি প্রেক্ষিত বাংলাদেশ” শীর্ষক আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সংগঠনের সভাপতি মোঃ জাকির হোসেনের সভাপতিত্বে ও নির্বাহী পরিচালক এস এম তাজুল ইসলামের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ মানবাধিকার ফেডারেশনের সভাপতি এড. ড. মোহাম্মদ শাহজাহান। প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, ১০ই ডিসেম্বরকে বিশ্ব মানবাধিকার দিবস বলে থাকি, আসলে বিশ্ব মানবাধিকার দিবস হলো হযরত মোহাম্মদ সঃ এর বিদায় হজের ভাষণই ছিলো বিশ্ব মানবাধিকার দিবসের ঐতিহাসিক দলিল। এবার বিশ্বকাপে দেখেছি আল-কোরানের আয়াত দিয়ে শুরু করা হয়েছে, এতে অনেক সমকামী দেশের খেলোয়ার মুখে হাত দিয়ে প্রবেশ করেছে। তিনি বলেন, বিদায় হজের ভাষণে বলা হয়েছিলো অন্যধর্মের লোকদের সুরক্ষা দিতে হয়, সেটাই মানবাধিকার। ভারতে যখন দাঙ্গা হয় আমরা তখন দেশের হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকদের সুরক্ষা দিয়ে থাকি, এটাই মানবাধিকার। ১০ ডিসেম্বর বিশ্ব মানবাধিকার দিবস কিন্তু আজ ৮ ডিসেম্বর আমাদেরকে অনুষ্ঠান করতে হচ্ছে, আমাদের অধিকার ক্ষুন্ন করা হচ্ছে, এটা মানবাধিকারের লঙ্ঘন।
আরো বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ মানবাধিকার ফেডারেশনের সহ-সভাপতি এড. ড. মোঃ গোলাম রহমান ভূইয়া, মানবাধিকার কর্মী ও সমাজসেবক এস এম এ জাফর বাদশা, সাংবাদিক নেতা ও মানবাধিকার কর্মী জাহাঙ্গীর আলম প্রধান, সাংবাদিক নেতা ও মানবাধিকার কর্মী তালুকদার রুমি, সেন্টার ফর প্রেস রাইটস্ এর সভাপতি কবির হোসেন টিটু, সাংবাদিক নেতা ও মানবাধিকার কর্মী এ কে এম ওয়াজেদ আলী, সংগঠনের পরিচালক হুমায়ুন কবির, সংগঠনের অর্থ পরিচালক প্রদীপ কুমার পাল, সাংবাদিক আশরাফ উদ্দিন মকুল, সাংবাদিক এ এইচ এম জামাল, ইসমাইল হোসেন টিটু, মোঃ মিজানুর রহমান প্রমুখ।
বক্তারা বলেন, যে দেশে গণতন্ত্র নাই, সেখানে মানবাধিকার থাকতে পারে না, নির্বিচারে গুলি করে মানুষ হত্যা করা হচ্ছে, এটা মানবাধিকারের চরম লঙ্ঘন। সরকারের কাছে আহবান জানাচ্ছি, মানুষের কথা বলার অধিকার, অন্নবস্ত্র- বাসস্থান, শিক্ষা চিকিৎসা মানুষের মৌলিক মানবাধিকার পূর্ণ প্রতিষ্ঠা করার। স্বাধীনতার ৫১ বছরে এসেও আজ আমাদের ভোটের অধিকার নাই, এটা ভাবতেও কষ্ট হয়। দিনের ভোট রাতে করে মানুষের ভোটের অধিকার কেড়ে নেওয়া হয়েছে। অনতিবিলম্বে কোন কালক্ষেপন না করে মানুষের ভোটের অধিকার ও গণতন্ত্র ফিরিয়ে দেয়ার জোর দাবি জানানো হয় এবং নিরাপরাধ নীরিহ মানুষকে হত্যাকারীদের শাস্তির আওতায় নিয়ে আসার আহ্বান জানানো হয়। আলোচনার শুরুতেই কোরআনে কালাম থেকে তেলোয়াত করেন সাংবাদিক ফয়েজুল্লাহ মানিক। এরপর ২০২১ ডিসেম্বর থেকে ২০২২ নভেম্বর গত ১ বছরের মানবাধিকার লঙ্ঘন সংক্রান্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করেন সংগঠনের নির্বাহী পরিচালক এস এম তাজুল ইসলাম।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here