মোবাইলে কুপ্রস্তাব দিয়ে গভীর রাতে তরুণীর ঘরে মেম্বার

0
20
728×90 Banner

মোঃরফিকুল ইসলাম মিঠু: নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার ৮ নম্বর চরএলাহী ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডে মধ্যরাতে এক তরুণীর (১৮) ঘর থেকে এক ইউপি সদস্যকে আটক করে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী।
সোমবার (৩ মে) দিনগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। আটককৃত হেলাল হোসেন (৪৮) ওই এলাকার মৃত নূরুল হকের ছেলে। তিনি একই ওয়ার্ডের বর্তমান ইউপি সদস্য।
স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মো. আবদুর রাজ্জাক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আটক ইউপি সদস্য হেলাল হোসেনকে পুলিশের হাতে সোপর্দ করা হয়েছে।
স্থানীয়রা জানান, অনেকদিন ধরে হেলাল মেম্বার ওই তরুণীকে মোবাইল ফোনে উত্ত্যক্ত করে আসছিলেন। সোমবার (৩ মে) রাতে কথা আছে বলে মেম্বার ভুক্তভোগী ওই তরুণীর ঘরে ঢুকে ধর্ষণের চেষ্টাকালে এলাকাবাসী তাকে হাতেনাতে আটক করে। এর পরে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশকে সংবাদ দেয় স্থানীয়রা।
ভুক্তভোগী তরুণী জানান, মেম্বার হেলাল গত কয়েক মাস থেকে মোবাইল ফোন নম্বর সংগ্রহ করে তাকে নানা ধরনের কুরুচিপূর্ণ কথাবার্তা বলে আসছিলেন। সোমবার (৩ মে) রাতে তাকে ফোন দিয়ে কথা আছে বলে ঘরে ঢুকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। পরে তার চিৎকারে আশপাশের লোকজন এসে মেম্বারকে হাতেনাতে আটক করে। এ সময় তিনি বিভিন্ন সময়ের বেশ কিছু কুরুচিপূর্ণ কথাবার্তার কল রেকর্ড স্থানীয়দের শোনান।
এ বিষয়ে কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মীর জাহেদুল হক রনি বলেন, হেলাল নামে চরএলাহীর একজন মেম্বারকে ধর্ষণ-চেষ্টার অভিযোগে আটক করা হয়েছে। বাদীর অভিযোগের ভিত্তিতে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

15 + 8 =