রাজধানীতে তিন তলা ছাদ থেকে পড়ে পুলিশ কনস্টেবল গুরুতর আহত

0
10
728×90 Banner

এস,এম,মনির হোসেন জীবন : রাজধানীর পূর্ব-রামপুরার একটি ভবনের তৃতীয় তলার ছাদ থেকে নিচে পড়ে গিয়ে জাহিদুল ইসলাম (৪০) নামে পুলিশের এক কনস্টেবল গুরুতর আহত হয়েছেন। তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহত জাহিদুল প্রটেকশন ডিভিশনে কর্মরত আছেন।
আজ শনিবার সকালে রাজধানীর পূর্ব রামপুরা পুরাতন পুলিশ ফাঁড়ির পানির পাম্প সংলগ্ন ২০৮/সি নম্বর বাড়িতে এদুর্ঘটনা ঘটে।
ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ (পরিদর্শক) মো. বাচ্চু মিয়া আজ শনিবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
পুলিশ, স্থানীয় লোকজন ও ওই বাড়ির কেয়ারটেকার মো. এনামুল হক জানান, রাজধানীর পূর্ব রামপুরা পুরাতন পুলিশ ফাঁড়ির পানির পাম্প সংলগ্ন ২০৮/সি নম্বর ভবনের তৃতীয় তলায় আজ সকাল সাড়ে ৬টার দিকে তার স্ত্রী বাসার ছাদে যায় পানির ট্যাংকি দেখতে। তখন ছাদে মোবাইল, সিগারেটের প্যাকেট পড়ে থাকতে দেখে। আর তৃতীয় তলায় জাহিদুলের রুমের টিভি, ফ্যান চালু দেখতে পায়। তবে রুমে কাউকে দেখতে পায়নি। এরপর ছাদের পাশ থেকে দেখে দুই ভবনের মাঝামাঝি একেবারে নিচে কেউ একজন পড়ে আছে।তখন তিনি বিষয়টি আমাকে জানায়।
এনামুল আরও জানান, সংবাদটি পাশের পুলিশ ফাঁড়িতে জানানো হয়। পুলিশ সেখান থেকে তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন তার অবস্থা আশঙ্কাজনক। আহত জাহিদুল প্রটেকশন ডিভিশনে কর্মরত রয়েছেন।
বাড়ির মালিক মো. শফিকুল ইসলাম জানান, প্রায় ২ বছর ধরে ওই বাসায় ভাড়া থাকে জাহিদুল। ২/৩ দিন আগে তার স্ত্রী ও মেয়ে গ্রামের বাড়ি যায় জাহিদুলের মাকে ঢাকায় নিয়ে আসতে। বাসায় তিনিএকাই ছিলেন ।
রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার বাচিডাঙ্গা গ্রামের বাসিন্দা জাহিদুল ইসলাম। পুলিশের এ কনস্টেবল পরিবারসহ রামপুরা পুরাতন পুলিশ ফাঁড়ির পানির পাম্প সংলগ্ন ২০৮/সি নম্বর ভবনের তৃতীয় তলায় বসবাস করে আসছিল।
এদিকে, ডিএমপির রামপুরা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আ. কুদ্দুছ ফকির জানান, আজ সকালে খবর পেয়ে তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে। ভবনটির ছাদে রেলিং ছিল না। কীভাবে নিচে পড়েছে বা কী হয়েছে তা এখনো বিস্তারিত জানা যায়নি। তবে, এবিষয়ে বিস্তারিত জানার চেষ্টা চলছে।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here