চলে গেলেন ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ: বাংলাদেশে তিনদিনের রাষ্ট্রীয় শোক

0
36
728×90 Banner

ডেস্ক রিপোর্ট: সত্তর বছর রাজত্ব করার পর ব্রিটেনের সবচেয়ে দীর্ঘ মেয়াদী রাজশাসক রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ মারা গেছেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৯৬ বছর। বৃহস্পতিবার লন্ডনের স্থানীয় সময় সন্ধ্যায় তার মৃত্যু বিষয়টি নিশ্চিত করে বিবৃতি দিয়েছে বাকিংহাম প্যালেস।
ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের মৃত্যুতে আজ থেকে তিনদিনের রাষ্ট্রীয় শোক ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
গত জুলাই মাস থেকে স্কটল্যান্ডের বারমোরাল প্রাসাদে ছিলেন রানি। বৃহস্পতিবার চিকিৎসকরা রানির শারীরিক অবস্থা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করলে তাকে চিকিৎসা তত্ত্বাবধায়নে নেওয়া হয়। পরে তার অসুস্থতার খবর পেলে ছুটে যান প্রিন্স চার্লসসহ রাজ পরিবারের সদস্যরা। সেখানেই মৃত্যু হয় রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের।
রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ বেশ কিছু দিন ধরে বিভিন্ন শারীরিক জটিলতায় ভুগছিলেন। হাঁটাচলা ও দাঁড়িয়ে থাকতে তাঁর সমস্যা হত।
রানি এলিজাবেথ ৭০ বছর ধরে সিংহাসনে ছিলেন। শতাব্দী দীর্ঘ ইতিহাসে তিনিই সবচেয়ে দীর্ঘ সময় সিংহাসনে অধিষ্ঠিত থেকেছেন। গত জুনে রানি এলিজাবেথের সিংহাসনে আরোহণের ৭০ বছর পূর্তি উপলক্ষে জাঁকজমকপূর্ণ অনুষ্ঠান করা হয়। ব্রিটেন ও ১৫টি কমনওয়েলথভক্ত দেশে চারদিনব্যাপী হয় সেই অনুষ্ঠানমালা।
রানি এলিজাবেথ ১৯৫২ সাল থেকে ২০২২ সাল পর্যন্ত একটানা ৭০ বছর ধরে সিংহাসনে আসীন ছিলেন। রানির পর সিংহাসনের দাবিদারদের মধ্যে রয়েছেন তার ছেলে যুবরাজ চার্লস, নাতি যুবরাজ উইলিয়ামসহ আরও অনেকে।
রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের জন্ম ২১ এপ্রিল ১৯২৬ সালে। ব্রিটেনের হাজার বছরের ইতিহাসে রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ হলেন দ্বিতীয় ব্যক্তি। ১৯৫২ সালের ৬ ফেব্রুয়ারি মাত্র ২৫ বছর বয়সে ব্রিটেনের সিংহাসন লাভ করেছিলেন রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ।
এলিজাবেথের বাবা ষষ্ঠ জর্জ ১৯৩৭ সালে ব্রিটেনের রাজা হন। এলিজাবেথ ছিলেন তখন ব্রিটিশ সিংহাসনের একমাত্র উত্তরাধিকারী। ষোল বছর বয়সে তিনি প্রথম জনসম্মুখে আসেন। আঠার বছর বয়সে সামরিক বাহিনীতে প্রশিক্ষণের জন্য যোগদান করেন। ১৯৫২ সালের ফেব্রুয়ারি মাসের ব্রিটিশ রাজা ষষ্ঠ জর্জের মৃত্যুর পর এলিজাবেথ সিংহাসনে বসেন।
১৯৪৭ সালের ২০ নভেম্বর যুবরাজ ফিলিপের সঙ্গে বিয়ে হয়। ফিলিপের সঙ্গে এলিজাবেথের প্রথম বাগদান সম্পন্ন হয় ১৯৪৬ সালে। যদিও ১৯৪৭ সালের ১ এপ্রিল এলিজাবেথ ২১ বছরে পদার্পণের পর সেটি স্বীকৃতি পায়। ২০২১ সালের এপ্রিলে জীবনসঙ্গীকে হারান রানি এলিজাবেথ। করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন যুবরাজ ফিলিপ। বার্ধক্যজনিত অসুখের কারণেই পরবর্তীতে মৃত্যু হয় তার।
ব্রিটেনের রানির মৃত্যুতে বাংলাদেশে তিনদিনের রাষ্ট্রীয় শোক
ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের মৃত্যুতে আজ থেকে তিনদিনের রাষ্ট্রীয় শোক ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
শুক্রবার (৯ সেপ্টেম্বর) সকালে প্রধানমন্ত্রী মন্ত্রীর প্রেস উইং এক বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের মৃত্যুতে আজ থেকে তিনদিনের রাষ্ট্রীয় শোক ঘোষণা করেছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
এর আগে রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের মৃত্যুতে আলাদা বার্তায় গভীর শোক ও সমবেদনা জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
উইনস্টন চার্চিল থেকে সদ্য নিয়োগপ্রাপ্ত প্রধানমন্ত্রী লিজ ট্রাসসহ রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের শাসনকালে ১৫জন প্রধানমন্ত্রী শপথ নিয়েছেন।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here