জিয়াউর রহমান ছিলেন বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবর্তক —-গাজী সালাহউদ্দিন

0
172
বাসন থানা স্বেচ্ছাসেবক দলের আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখছেন গাজীপুর মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র সহ সভাপতি গাজী সালাহউদ্দিন
728×90 Banner

গাজীপুর মহানগরে স্বেচ্ছাসেবক দলের আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত

ডেইলি গাজীপুর প্রতিবেদক : শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৪০তম শাহাদাৎ বার্ষিকী উপলক্ষে সোমবার বাসন থানা ও গাছা থানা স্বেচ্ছাসেবক দলের আয়োজনে পৃথক পৃথক আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে৷ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন গাজীপুর মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র সহ সভাপতি গাজী সালাহউদ্দিন।

গাছা থানা স্বেচ্ছাসেবক দলের আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখছেন গাজীপুর মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র সহ সভাপতি গাজী সালাহউদ্দিন

তিনি বলেন, জিয়াউর রহমান ছিলেন আধুনিক বাংলাদেশের রুপকার,মহান স্বাধীনতার ঘোষক, বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবর্তক ও আধুনিক বাংলাদেশের স্থপতি ৷ তিনি ছিলেন অত্যন্ত দূরদৃষ্টি সম্পন্ন একজন দেশপ্রেমিক রাষ্ট্র নায়ক৷ মাত্র সাড়ে ৪ বছরের রাষ্ট্র

গাছা থানা স্বেচ্ছাসেবক দলের আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখছেন গাজীপুর মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র সহ সভাপতি গাজী সালাহউদ্দিন

পরিচালনায় তিনি বাংলাদেশকে বিশ্বের দরবারে একটি স্বতন্ত্র ও সফল রাষ্ট্র হিসাবে পরিচিতি এনে দিয়েছিলেন৷ জিয়াউর রহমানের দেশপ্রেম, বিচক্ষনতায় সেই সাড়ে ৪ বছরে বিচার বিভাগ ও সংবাদপত্রের স্বাধীনতা জন্য ভূমিকা রাখা, গ্রামাঞ্চলের নিরাপত্তায় আনসার (ভিডিপি) গঠন, প্রায় ২৮ হাজার পল্লী চিকিৎসক নিয়োগের দ্বারা গ্রামীন চিকিৎসা ব্যাবস্থার উন্নয়ন, যুব উন্নয়ন ও মহিলা বিষয়ক মন্ত্রণালয় গঠন করে যুব প্রশিক্ষণ এর মাধ্যমে বেকারত্ব দূরীকরন প্রকল্প বাস্তবায়ন, জাতীয়ভাবে বিটিভিতে “নতুন কুঁড়ি” নামে অনুষ্ঠান শুরু করন ও শিশুদের সাংস্কৃতিক চর্চার জন্য শিশু একাডেমী গঠন, মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মাননায় “স্বাধীনতা ও একুশে পুরস্কারের পদক” প্রবর্তন, অর্থনৈতিক উন্নয়নে গার্মেন্টস শিল্পের উদ্ভাবন ও উদ্যোক্তা তৈরী,
হিমায়িত খাদ্য, হস্তশিল্প সহ অপ্রচলিত পন্যের রপ্তানির নতুন পথ তৈরী। পাশাপাশি জনশক্তি রপ্তানির মাধ্যমে পেট্রো ডলার আমদানি উৎস তৈরি। দেশ গঠনে সর্বক্ষেত্রেই শহীদ জিয়ার সুদূরপ্রসারী দৃষ্টিভঙ্গি ও কার্যকর ভূমিকার অবদান উল্লেখযোগ্য ৷ আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে সার্ক গঠনে তার ভূমিকা এবং ও.আই.সি গঠনে জিয়ার ভূমিকাও অনস্বীকার্য৷
গাজী সালাহউদ্দিন আরো বলেন, আওয়ামীলীগ ও আওয়ামীলীগের তৎকালীন নেতৃত্ব যেখানে ব্যার্থ, জিয়াউর রহমান ও তার দল বিএনপি সেখানেই সফল৷ আর এ জন্যই জিয়া পরিবার ও বিএনপির নাম শুনলেই আওয়ামীলীগের এত ভয় এত গাত্রদাহ৷ রনাঙ্গনে যুদ্ধ করা জেড (Z ) ফোর্সের অধিনায়ক জিয়াউর রহমানের বীর উত্তম খেতাব নিয়ে আওয়ামীলীগ এত হীন ষড়যন্ত্র লিপ্ত৷ তিনি বেগম জিয়ার মুক্তি কামনা ও সু-চিকিৎসারও দাবী জানান৷ তিনি বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশে স্বেচ্ছাসেবক দলের তথা বিএনপির প্রতিটি আন্দোলন সংগ্রামে নেতাকর্মীদের অংশগ্রহণ করার আহ্বান জানান৷ গনতন্ত্র পুনরুদ্ধার ও ভোটের অধিকার আদায়ের পাশাপাশি স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব রক্ষায় রাজপথে গাজীপুর মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতাকর্মীদের নিয়ে মাঠে থাকার দৃঢপ্রত্যয় ব্যক্ত করেন৷
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন গাজীপুর মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সাংগঠনিক সম্পাদক বাপ্পী দে৷ তিনি জিয়াউর রহমানের স্বাধীনতার ঘোষনার বীরগাঁথা জীবনের উপর আলোকপাত বক্তব্য প্রদান করেন৷
২টি পৃথক স্থানে অনুষ্ঠিত আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠান ২টি বাসন থানায় মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের কোষাধ্যক্ষ মোঃ নূরউজ্জামানের সভাপতিত্বে বাসনে ও গাছা থানা স্বেচ্ছাসেবক দলের অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন জাকির খন্দকার৷ গাছা থানায় অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সহ প্রচার সম্পাদক মোঃ সিদ্দিক ও মহানগর ছাত্রদলের অর্থ সম্পাদক এম.আলিফ চৌধুরী৷

বাসন থানা স্বেচ্ছাসেবক দলের আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখছেন গাজীপুর মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র সহ সভাপতি গাজী সালাহউদ্দিন

শাহাদাৎ বার্ষিকীর অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বাসন থানা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক নূরুল ইসলাম, বাসন থানা বিএনপির প্রচার সম্পাদক মোঃআব্দুল মান্নান৷ মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সহ-সভাপতি হেলাল খাঁন, মহানগর যুবদলের সহ-সভাপতি ও গাছা ইউনিয়ন যুবদলের সাবেক সভাপতি জাহাঙ্গীর হাজারী, গাছা ইউনিয়ন ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি আসাদুজ্জামান আসাদ, সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ ইউসুফ আলী সরকার, মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম সম্পাদক মোঃ ইব্রাহিম মিয়া, সহ সাধারন সম্পাদক মোঃ আমিনুল ইসলাম টানু, মোঃ কাজীবুর রানা, মোঃ রুবেল খন্দকার, মহানগর ছাত্রদলের সহ সভাপতি মোশারফ হোসেন সুমন, বাসন থানা ছাত্রদলের আহবায়ক মোঃ লুৎফর রহমান, মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ নাহিদ সিকদার, শফিকুল ইসলাম বাবু৷ সহ মানবাধিকার বিষয়ক সম্পাদক মোঃ আল আমিন শুভ, টংগী পূর্ব থানা স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতা মোঃ আমজাদ হোসেন৷ কোকো পরিষদ গাজীপুর মহানগর এর সেক্রেটারি মিরাজ মিয়া, মহানগর যুবদলের সদস্য সোহেল খাঁন, ৩৮ নং যুবদলের সভাপতি মোকলেছুর রহমান,মেট্রো থানা স্বেচ্ছাসেবক দলনেতা মাসুদ রানা ও নিজামউদ্দিন বিজয়, গাছা যুবদলের অন্যতম নেতা রুবেল সরকার, গাছা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সচিব প্রার্থী এস.এম ফরহাদ ৷ স্বেচ্ছাসেবক দলনেতা সাইদুল ইসলাম মাতবর৷ ২৮ নং ওয়ার্ড যুবদলের সাধারন সম্পাদক মোঃ দুঃখু মিয়া, স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতা রন্জু প্রমুখ৷

 

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

4 × two =