অনুমতি ছাড়াই ১০ হাজার ডলার বহন করতে পারবেন প্রবাসীরা

0
12
728×90 Banner

ডেইলি গাজীপুর প্রতিবেদক : বিদেশ থেকে আসার সময় কর্তৃপক্ষকে না জানিয়ে সর্বোচ্চ ১০ হাজার ডলার দেশে আনা যাবে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।
মঙ্গলবার এ সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে বলা হয়, এর চেয়ে বেশি পরিমাণ অর্থ আনলে আনলে ঘোষণা দিতে হবে, গুনতে হবে শুল্ক।
বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বিদ্যমান বৈদেশিক মুদ্রা লেনদেন ব্যবস্থায় বিদেশে বসবাসরত প্রবাসী এদেশে প্রাইভেট ফরেন কারেন্সি হিসাব কিংবা নন-রেসিডেন্ট ফরেন কারেন্সি ডিপোজিট হিসাব পরিচালনা করতে পারেন। অর্থাৎ প্রবাসীরা সহজেই দেশের যেকোনো ব্যাংকে বিদেশি মুদ্রার হিসাব খুলতে পারেন। বিদেশ থেকে পাঠানো ফরেন কারেন্সি (বিদেশি মুদ্রা) কিংবা বিদেশ থেকে বাংলাদেশে আগমনকালে সঙ্গে নিয়ে আসা বিদেশি মুদ্রা এসব হিসাবে জমা রাখা যায়। বিদেশ থেকে আগত যাত্রী যে কোনো পরিমাণ বিদেশি মুদ্রা বাংলাদেশে আনতে পারেন। সঙ্গে নিয়ে আসা বিদেশি মুদ্রার পরিমাণ অনধিক ১০ হাজার মার্কিন ডলার বা সমতুল্য অন্য কারেন্সি হলে শুল্ক কর্তৃপক্ষের নিকট ঘোষণা প্রদানের প্রয়োজন নেই।
স্থানীয়ভাবে পরিচালিত এসব বিদেশি মুদ্রা হিসাবের স্থিতি অবাধে টাকায় নগদায়ন করা যায়। বিদেশ থেকে আগত প্রবাসী ব্যক্তি বাংলাদেশ ত্যাগকালে তার হিসাবের স্থিতি হতে অনধিক পাঁচ হাজার ইউএস ডলার নোট আকারে এবং হিসাবের স্থিতি থাকা সাপেক্ষে প্রয়োজন অনুযায়ী অন্য ফরেন কারেন্সি সঙ্গে নিয়ে যেতে পারেন।
প্রবাসী/অনিবাসী ব্যক্তির নামে পরিচালিত এসব বিদেশি মুদ্রা হিসাবের স্থিতি সুদসহ অবাধে বিদেশে পাঠানো যায়। এক্ষেত্রে বাংলাদেশ ব্যাংকের কোনোরূপ অনুমোদনের প্রয়োজন নেই বলেও বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

four × five =