নরসিংদীতে এলজিএসপি-৩ এর অগ্রগতি ও অর্জন অবহিতকরণ বিষয়ক কর্মশালা

0
22
728×90 Banner

নরসিংদী থেকে হলধর দাস :নরসিংদীতে লোকাল গর্ভর্ন্যান্স সাপোর্ট প্রজেক্ট-3 (এলজিএসপি-3) এর অগ্রগতি, অর্জনসমূহ অবহিতকরণ এবং ভবিষ্যৎ করণীয় বিষয়ে বুধবার (12 অক্টোবর) দিনব্যাপী এক কর্মশালা সম্পন্ন হয়েছে।
নরসিংদী জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত এ সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক(উপসচিব)ভূঁঞা মোহাম্মদ রেজাউর রহমান ছিদ্দিকি ।
কর্মশালার মূল উদ্দেশ্য ছিল লোকাল গভর্ন্যান্স সাপোর্ট প্রজেক্ট-৩ সম্পর্কে জনসচেতনতা বৃদ্ধি; গণমাধ্যম কর্মীদের প্রকল্পের সাফল্যগাঁথা ও অর্জনসমূহ প্রকাশ ও প্রচারে উৎসাহী করাসহ স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রমে স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও বরাদ্ধের সুষম বন্টন নিশ্চিত করণে ভবিষ্যৎ করণীয় বিষয়ে সুপারিশ প্রণয়ন। অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে অংশগ্রহণকারীদের 4টি ভাগে বিভক্ত করে সুপারিশ গ্রহণ করা হয়।
নরসিংদী জেলা প্রশাসন আয়োজিত এ কর্মশালার মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন অনুষ্ঠানের সভাপতি ভূঁঞা মোহাম্মদ রেজাউর রহমান ছিদ্দিকি।কর্মশালা সঞ্চালনা করেন এলজিএসপি-3 এর ডিএফ এ, বি, এস মাহবুবার রহমান। কর্মশালায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন নরসিংদীর সিভিল সার্জন ডা. মোঃ নুরুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মোঃ মাসুম, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এ এস এম ইবনুল হাসান ইভেন, নরসিংদী সরকারী কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর সূর্যকান্ত দাস, সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর মোহাম্মদ আলী প্রমুখ।
কর্মশলায় জানানো হয় যে, 1 জানুয়ারি 2017 থেকে 31 ডিসেম্বর 2022 পর্যন্ত 6 বছর মেয়াদি এ প্রকলেপর মোট ব্যয় ধরা হয়েছে 5744.20 কোটি টাকা। এর মধ্যে বাংলাদেশ সরকারের অর্থ 3153 কোটি টাকা এবং বিশ্ব ব্যাংকের ঋণ 2591.20 কোটি টাকা। এখন থেকে প্রকল্পের থোক বরাদ্ধের অর্থ সরাসরি দেশের 4571টি ইউনিয়ন পরিষদের ব্যাংক হিসাবে প্রেরণ করা হচ্ছে।
প্রকল্পের মূল উদ্দেশ্য হলোঃ ইউনিয়ন পরিষদে বর্তমান ফর্মূলা ভিত্তিক (আয়তন ও জনসংখ্যা) থোক বরাদ্ধের অর্থ স্থানান্তর পদ্ধতির প্রাতিষ্ঠানিকীকরণ এবং 16টি পৌরসভাতে পাইলট ভিত্তিতে সম্প্রসারিত থোক বরাদ্ধ চালুকরণ।
আরো জানান, এলজিএসপি’র আওতায় সরকারের নীতি সংস্কারের উদ্যোগের অংশ হিসেবে বিভিন্ন কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে। এ মাধ্যমে সরকারি কার্যক্রম বিকেন্দ্রীয়করণ এবং ইউনিয়ন পরিষদের ক্ষমতায়নের জন্য ইউনিয়নপ পরিষদের ক্ষমতায়নের জন্য ইউনিয়ন পরিষদের ব্যাঙক একাউন্টে সরাসরি অর্থ স্থানান্তর, বার্ষিক আর্থিক অডিট, কর্মদক্ষতা মূল্যায়ন, তথ্য ব্যবস্থাপনা, পরিকল্পনা প্রণয়ন ও বাস্তবায়নে সকল ইউনিয়ন পরিষদে দুই কিস্তিতে বছরে দুইবার মৌলিক থোক বরাদ্ধ ইউনিয়ন পরিষদের ব্যাংক একান্ডন্টে সরাসরি স্থানান্তর,বার্ষিক আর্থিক অডিট,কর্মদক্ষতা মূল্যায়ন,তথ্য ব্যবস্থাপনা,পরিকল্পনা প্রণয়ন ও বাস্তবায়নে জন-অংশগ্রহণসহ সকল ক্ষেত্রে সুশাসন ব্যবস্থা চালু করা হয়েছে।
নরসিংদীতে এলজিএসপি’র উল্লেখযোগ্য সাফল্য লাভ করায় উপস্থিত সুধীজনদের পক্ষ থেকে স্থানীয় সরকার বিভাগের উপপরিচালক মহোদয়কে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করা হয়। উল্লেখযোগ্য অর্জন বা সাফল্যসমূহ হলোঃ
(1)সকল ইউনিয়ন পরিষদে দুই কিস্তিতে বছরে দুইবার মৌলিক থোক বরাদ্দ ইউনিয়ন পরিষদের ব্যাংক একাউন্টে সরাসরি স্থানান্তর করা ;
(2) মৌলিক থোক বরাদ্ধের তিন বছরের সম্ভাব্য বরাদ্ধ অগ্রিম (ইন্ডিকেটিব সিলিং) ঘোষণা এবং তাই উনিয়ন পরিষদকে জানিয়ে দেয়া;
(3) ইউনিয়ন পরিষদের তহবিলে জমা হওয়া এক অর্থ বছরের অর্থ অব্যয়িত থাকলে সে অর্থ পরবর্তী অর্থবছরে ব্যবহারের একটি পদ্ধতি চালু ;
(4) কর্মদক্ষতা ভিত্তিক অনুদান চালুকরণ;
(5) বেসরকারী অডিট ফার্মের মাধ্যমে সকল ইউনিয়নের বার্ষিক আর্থিক অডিট এবং কর্মদক্ষতা মূল্যায়ন;
(6) ইউনিয়ন পরিষদের থোক বরাদ্ধে বিশ্বব্যাংকের অংশ ক্রমশহ্রস এবং সরকারি অংশ বৃদ্ধি;
(7) পরিকল্পনা স্কিম বাস্তবায়নে পরিবেশ ও সামাজিক সুরক্ষা ব্যবস্থা প্রতিপালন;
(8)প্রকল্পের স্কিম বাস্তবায়নে পরিবেশ ও সামাজিক সুরক্ষা ব্যবস্থা প্রতিপালন;
(9) উন্নয়ন পরিকল্পনা প্রণয়ন ও স্কিম নির্বাচনে নারীর অংশগ্রহণ বৃদ্ধি;
(10) ইউনিয়ন পরিষদের দৈনন্দিন কার্যক্রমে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতানিশ্চিত করার মাধ্যমে সুশাসনের পথে অগ্রসর হাওয়া;
(11) বিভিন্ন মেয়াদী পরিকল্পনা, বার্ষিক বাজেট প্রণয়ন, উন্নয়ন প্রকল্প/স্কিম নির্বাচন, বাস্তবায়ন ও তদারকিতে জনংঅংশগ্রহণ বৃদ্ধি এবং(12) সর্বোপরি সামগ্রিকভাবে স্বল্প ব্যয়ে দ্রুততম সময়ে স্থানয়ি পর্যায়ে সেবা প্রদানে স্বচ্ছতার একটি অনুকূল পরিবেশ প্রস্তুত।
স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানের সার্বিক কর্যক্রম শক্তিশালীকরণ, প্রাতিষ্ঠানিক সক্ষমতা বৃদ্ধি ও টেকসইকরণে এলজিএসপি-3 উল্লেখযোগ্য অবদান রাখতে সক্ষম হয়েছে বলেও মাঠ পর্যায়ের প্রতিনিধিদের বক্তব্যে উঠে এসেছে । স্থানীয় পর্যায়ে জনঅংশগ্রহণ এবং স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিতকরণে এলজিএসপি-3 এর সাফল্য আশাব্যঞ্জক তারা মন্তব্য করেন ।
তারা আরো বলেন, এলজিএসপি-৩ এর আওতায় স্থানীয সরকার প্রতিষ্ঠানকর্তৃক গৃহিতউন্নয়ন স্কিমসমূহ স্থানীয় পর্যায়ে ব্যাপক কর্মসংস্থান সৃষ্টির মাধ্যমে বেকারত্ব লাঘবে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে চলছে।
নারীর ক্ষমতায়ন সহ নাগরিক সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধি ও গ্রামীণ দারিদ্র্য হ্রাসকরণে এলজিএসপি-৩ উল্লেখ্যযোগ্য অবদান রাখতে পেরেছে। ক্ষমতা বিকেন্দ্রীকরণের মাধ্যমে সকল ইউনিয়ন পরিষদ ও নির্বাচিত পৌরসভাকে কার্যকর স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান হিসেবে রূপ দিতে এলজিএসপি-৩ এর ভূমিকা অনস্বীকার্য।
কর্মশালায় গণমাধ্যমকর্মী, নীতিনির্ধারক ও পরিকল্পনাবিদ, নির্বাচিত স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, স্থানীয় নাগরিক সমাজ,গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, উন্নয়নকর্মী, নারী প্রতিনিধি, ও অন্যান্য স্টেকহোল্ডার সমেত অর্ধশতাধিক প্রতিনিধি অংশগ্রহণ করেন।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here