বাংলাদেশ উপকূলে আঘাত হেনেছে আম্ফান

0
33
728×90 Banner

ডেইলি গাজীপুর প্রতিবেদক :বাংলাদেশ উপকূলে আঘাত হেনেছে অতি শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় আম্ফান।বুধবার বিকেল ৪টার দিকে এটি প্রথম আঘাত হানে।
রাতে আম্পান দ্বিতীয়বার আঘাত হানতে পারে জানিয়েছেন আবহাওয়া অধিদপ্তর।
আজ সন্ধ্যায় আবহাওয়া অধিদপ্তরের পক্ষ থেকে জানানো হয়, ‘একটা ঘূর্ণিঝড় যখন সাগর থেকে উপকূল অতিক্রম করে স্থলভাগে প্রবেশ করে, তখন কিছু সময় তাণ্ডব চালানোর পর সবকিছু নীরব হয়ে যায়। এর কয়েক ঘণ্টা পর আবারও তাণ্ডব শুরু হয়ে যায়। মানুষ প্রথম ধাক্কার পর মনে করে ঘূর্ণিঝড় শেষ হয়ে গেছে, সবাই বাইরে বের হয় এবং দ্বিতীয়বারের ধাক্কায় হতাহতের ঘটনা ঘটে থাকে। তাই সবাই সাবধান থাকেন, প্রথম ধাক্কা এসেছে বিকেল ৪টায়, দ্বিতীয় ধাক্কা আসতে পারে রাত ৮টায়।’
এর আগে আবহাওয়া অধিদপ্তরের পরিচালক সামছুদ্দীন আহমেদ গণমাধ্যমকে জানান, আম্ফান অতিক্রমের সময় বাতাসের গতিবেগ ঘণ্টায় ১৬০ থেকে ১৮০ কিলোমিটারের মধ্যে রয়েছে। আজ বিকেল ৪টা থেকে রাত ৮টার মধ্যে আম্ফান বাংলাদেশের সাতক্ষীরা, খুলনা অঞ্চল অতিক্রম করবে। এ সময় বাতাসের গতিবেগ ক্রমান্বয়ে কমতে থাকবে।
এদিকে আবহাওয়ার ৩৪ নম্বর বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে বাংলাদেশের আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, ঘূর্ণিঝড় ‘আম্ফান’ বুধবার বিকেল ৩টায় চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ৪২০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ৪৩০ কিলোমিটার দক্ষিণপশ্চিমে, মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ২০০ কিলোমিটার দক্ষিণপশ্চিমে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ২৫০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে অবস্থান করছিল।
ঘূর্ণিঝড়টি বিকেল বা সন্ধ্যার মধ্যে সাগরদ্বীপের পূর্বপাশ দিয়ে পশ্চিমবঙ্গ-বাংলাদেশ উপকূল অতিক্রম করতে পারে।
ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৮৫ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ২০০ কিলোমিটার যা দমকা অথবা ঝোড়ো হাওয়ার আকারে ২২০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের নিকটে সাগর খুবই বিক্ষুব্ধ রয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here