বঙ্গবন্ধুর নামে ৪ দেশে ৫ স্কুল প্রতিষ্ঠার উদ্যোগ

0
11
728×90 Banner

ডেইলি গাজীপুর প্রতিবেদক: বঙ্গবন্ধু শেখ মুুজিবুর রহমানের নামে চারটি দেশে পাঁচটি স্কুল প্রতিষ্ঠা করা হবে। এরই অংশ হিসেবে ইউরোপের দেশ গ্রিসে প্রথম বঙ্গবন্ধুর নামে স্কুল প্রতিষ্ঠা করা হচ্ছে। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় গ্রিসের এথেন্সে ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সেন্টেনিয়াল স্কুল’টি নির্মাণ করবে। এ জন্য ব্যয় হবে ২৬ কোটি ২৪ লাখ ৬৭ হাজার টাকা। স্কুল প্রতিষ্ঠার বিষয়টি অনুমোদনের জন্য অনুষ্ঠেয় অর্থনৈতিক বিষয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হচ্ছে বলে জানা গেছে। ভার্চুয়াল প্ল্যাটফর্মে অনুষ্ঠিতব্য এই বৈঠকে সভাপতির দায়িত্ব পালনের কথা রয়েছে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের।
জানা গেছে, এর আগে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থা মন্ত্রণালয়ের গৃহীত কর্মসূচির আওতায় গ্রিসের এথেন্সে প্রস্তাবিত ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সেন্টেনিয়াল স্কুল’ প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে গ্রিসের বাংলাদেশ দূতাবাসকে স্কুলটির ভবনসহ অন্যান্য ক্রয়সংক্রান্ত কার্যক্রমে বরাদ্দকৃত অর্থ ব্যয়ে পিপিএ, ২০০৬ ও পিপিআর ২০০৮ অনুসরণ করা থেকে অব্যাহতি এবং স্থানীয় আইন অনুসরণের অনুমতি দেয়া হয়।
এ বিষয়ে কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় থেকে জানানো হয়েছে, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে প্রবাসী বাংলাদেশীদের সন্তানদের পড়াশোনার সুবিধার্থে এ মন্ত্রণালয়ের অর্থায়নে গ্রিসের এথেন্স, সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাস আল খাইমাহ, সৌদি আরবের রিয়াদ ও দাম্মাম এবং বাহরাইনে মোট পাঁচটি বাংলাদেশী স্কুল প্রতিষ্ঠা করা হবে। স্কুলগুলো ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সেন্টেনিয়াল স্কুল’ নামে এককভাবে অথবা ক্ষেত্রবিশেষে সংশ্লিষ্ট দেশের কোনো নেতার সাথে যৌথ নামে নামকরণ করার বিষয়ে গত বছর ৩০ এপ্রিল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা অনুমোদন দেন। এরপর একই বছর ৫ জুলাই স্কুলের নামকরণের বিষয়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেমোরিয়াল ট্রাস্ট অনুমোদন দিয়েছে।
এর পর গ্রিসের এথেন্সে প্রস্তাবিত স্কুলের ভবন ক্রয়, দু’টি স্কুল বাস কেনা এবং বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল নির্মাণসহ অন্যান্য আনুষঙ্গিক খরচ বাবদ মোট ২৬ লাখ ৫০ হাজার ৯৫০ ইউরো সমপরিমাণ অর্থ বরাদ্দের জন্য গ্রিসে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাস প্রস্তাব পাঠায়। সেই প্রস্তাবের পরিপ্রেক্ষিতে ওয়েজ আর্নার্স কল্যাণ বোর্ডের গত বছরের আগস্টে অনুষ্ঠিত ২৯৮তম বোর্ড সভায় স্কুল বাস ছাড়া অবশিষ্ট ২৫ লাখ ৩৪ হাজার ইউরো সমপরিমাণ ২৬ কোটি ২৪ লাখ ৬৭ হাজার ৫৫৮ টাকা বরাদ্দের অনুমোদন দেয়া হয়। এ অবস্থায়, বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ে বিষয়টি নিয়ে চিঠি চালাচালি হয়। পরবর্তী সময়ে বাস্তবায়ন পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়ন বিভাগের পরামর্শ অনুযায়ী, গ্রিসের এথেন্সে প্রস্তাবিত ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সেন্টেনিয়াল স্কুল’-এর স্কুল ভবনসহ অন্যান্য ক্রয়সংক্রান্ত কার্যক্রমে বরাদ্দকৃত অর্থ ব্যয়ে পিপিএ ২০০৬ ও পিপিআর ২০০৮ অনুসরণ করা থেকে অব্যাহতি এবং গ্রিসের স্থানীয় আইন অনুসরণের বিষয়ে অর্থনৈতিক বিষয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির সুপারিশ নেয়ার জন্য কমিটির পরবর্তী সভায় উপস্থাপন করা হবে বলে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে। এ জন্য আজ বুধবার অর্থনৈতিক বিষয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি বৈঠকে প্রস্তাবটি অনুমোদন দেয়ার জন্য উত্থাপন করা হচ্ছে।

Print Friendly, PDF & Email
728×90 Banner

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

thirteen − eleven =